When Muslims say prayer they turn their face towards Ka’ba. History instates that Ka’ba was a temple mainly housing 360 pagan idols before the spread of Islam. When Muhammad went to Medina (being a refugee) he suddenly changed the direction of prayer towards Ka’ba. However, previously, before coming to Madina, Muslims used to pray facing towards Jerusalem. But now suddenly they start to say prayer facing towards Ka’ba. So if Islam condemns idolatry then why Muslims say prayers facing towards an Idol temple?? Its also more of a hypocrisy for Muslims that they circle seven (7) times around the Ka’ba during pilgrimage which was again more of a pagan tradition.

So the question is whether prayer and pilgrimage is “holy” or “sacred” or is it mere yet another hypocrisy of Islam.

————-

প্রশ্ন হলো “মন্দিরের” দিকে ঘুরে নামাজ পড়াটা কতটুকু যোক্তিক??
নবী মুহাম্মদ মক্কা আসার আগে কাবা শরীফ ছিল প্যাগানদের মন্দির। আর সেই মন্দিরে ছিল ৩৬০ টা মূর্তি। যেখানে প্যাগানরা সাতবার প্রদক্ষিণ করতো। আর সেই মূর্তিগুলা যেহেতু ছিল অনেক প্রাচীন তাই এটা খুব সহজেই অনুমান করা যাই যে অধিকাংশ মূর্তিই ছিল কালী মূর্তির মতো (যা কেউ কেউ দাবি করেন অত্যন্ত বিভৎস)। তাহলে আপনি যদি পোত্তলিক প্রথার বিরোধিতা করেন তাহলে আপনার তো প্রথমে নামাজ ব্যান করা উচিত। কারণ আপনি নামাজ পড়েন সেই কাবা শরীফের দিকেই ঘুরে (কিবলা)।
তাইলে মন্দিরের দিকে মুখ ঘুরিয়ে নামাজ পড়া কি ভণ্ডামি নয় ??
হজ করতে গিয়ে আপনি কাবা শরীফে সাত বার প্রদক্ষিণ করেন তাও কি তাইলে ভণ্ডামি নয়??

কেউ কেউ আবার এটাও দাবি করে যে কাবাঘর না কি শুধু ইসলাম প্রচারের বা হজ্ব বা তার দিকে মুখ ঘুরিয়ে নামাজ আদায় করার জন্য নির্মাণ করা হয়েছিল।

যদি কাবাঘরে কখনোই মূর্তিপূজা না করার আল্লাহর আদেশ থাকে তাইলে তো তা ইসলামের শুরুতেই কাব্বার দিকে মুখ ঘুরিয়ে নামাজ হওয়া উচিত ছিল।

কিন্তু তা না করে তাহলে প্রথমে (মক্কা অবস্থান কালে) নবী মুহাম্মদ জেরুজালেম দিকে মুখ ঘুরে নামাজের প্রচলন কেন করলেন?? মদিনা আসার পর উনার হঠাৎ মনে হলো কেন যে এখন কাবার দিকে মুখ ঘুড়িয়ে নামায আদায় করা উচিত ??

উনি মক্কা আসার পর মূর্তি ধ্বংস করার পর তাইলে কাব্বার দিকে নামাজের প্রচলন করতেন। তা তো তিনি করেন নি।  মদিনায় থাকা অবস্থাই যখন কাবা শরীফ একটি পোত্তলিক মন্দির সেই কাব্বার দিকে মুখ ঘুরিয়ে নামায আদায় ভন্ডামি নয় ??

সত্য হল নবীজি মদিনা যাওয়ার আগে আসা করেছিলেন যে মদিনার ইহুদিরা উনার ধর্ম (ইসলাম) মেনে নিবে। কিন্তু তা হয়নি। তখন উপায় অন্তর না দেখে ইহুদিদের বিপক্ষে অবস্থান নেয়ার জন্য উনি জেরুজালেমর দিকের থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিয়ে কাবার দিকে নামাজ আদায়ের প্রচলন করেন যা প্রমান করে যে এই নামাজ আদায় (যা মূলত একটা ইহুদি প্রথা) পুরুটাই ভণ্ডামি ছাড়া অন্য কিছু নয়।

————–

360idols

Advertisements